Breaking News
Home / জাতীয় / বেসরকারি চাকুরীজীবিদের জন্য দারুণ সুখবর দিচ্ছে সরকার
images

বেসরকারি চাকুরীজীবিদের জন্য দারুণ সুখবর দিচ্ছে সরকার

বেসরকারি খাতের পেনশন নিয়ে অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত বলেছেন, আমরা সারা দেশের জন্য পেনশন ব্যবস্থা চালু করেছি, একটু সময় লাগবে। এই বিষয়টি নিয়ে সংশ্লিষ্টদের সঙ্গে আগামী বাজেটের আগে বসা হবে। এ ছাড়া এ যাবৎ যারা শতভাগ পেনশন তুলেছেন, তারাই ডুবেছেন বলে মন্তব্য করেছেন অর্থমন্ত্রী।

গতকাল সচিবালয়ে সরকারি ক্রয় সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটির বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি এসব কথা বলেন।

বেসরকারি খাতে অবসরে যাওয়া চাকরিজীবীদের জন্য কিছু করবেন কিনা, জানতে চাইলে অর্থমন্ত্রী বলেন, হ্যাঁ, সেটাও করা হবে; কিন্তু একটু সময় লাগবে। তিনি বলেন, অবসর ভাতাভোগীদের জন্য সংশ্লিষ্ট কোম্পানিগুলোরও দায়বদ্ধতা রয়েছে। তাই এটা নিয়ে আমরা সংশ্লিষ্ট সব পরে সঙ্গে আলোচনায় বসব।

শতভাগ পেনশন সমর্পণকারীদের বিষয়ে মুহিত বলেন, অনেকে ১০০ শতাংশ পেনশন উঠিয়েছেন, এটা ভুল সিদ্ধান্ত। পেনশন অবসরকালীন সময়ের সিকিউরিটি। যারা শতভাগ তুলেছেন, তারা সবাই ডুবেছেন। এখন অনেক কিছু চেঞ্জ হচ্ছে। যারা পেনশনের শতভাগ অর্থ তুলেছেন, তারা কোনো সুবিধা পাচ্ছেন না। ভবিষ্যতে যাতে এটা না হয় সেজন্য অর্ডার করেছি, কেউ ৫০ শতাংশের বেশি তুলতে পারবে না।

সরকারি কর্মচারীরা এখন থেকে পেনশনের পুরো টাকা আর একবারে তুলে নিতে পারবেন না। সর্বোচ্চ অর্ধেক তুলতে পারবেন। বাকি অর্ধেক নিতে হবে মাসে মাসে। গত মঙ্গলবার এ বিষয়ে একটি প্রজ্ঞাপন জারি করেছে অর্থ মন্ত্রণালয়ের অর্থ বিভাগ। পেনশনধারীদের আর্থিক ও সামাজিক সুরা নিশ্চিত করার স্বার্থে বিধানটি চালু করা হয়েছে বলে প্রজ্ঞাপনে উল্লেখ করা হয়। আগামী ১ জুলাই থেকে এই বিধান কার্যকর হবে। অর্থাৎ এ বছরের ৩০ জুন বা তারপর যাদের অবসরউত্তর ছুটি শেষ হবে, তারাই নতুন নিয়মের আওতায় আসবেন। তবে পেনশনার বা পারিবারিক পেনশনাররা মাসিক পেনশনের ওপর ৫ শতাংশ হারে বার্ষিক ইনক্রিমেন্ট পাবেন। এটিও কার্যকর হবে আগামী ১ জুলাই থেকে।

প্রসঙ্গত, বর্তমানে কেউ চাইলে পুরো টাকা তুলে নিয়ে যেতে পারেন, আবার মাসে মাসেও নিতে পারেন। অর্থাৎ দুটি বিকল্পই খোলা আছে। নতুন বিধানের মাধ্যমে পেনশনের ৫০ শতাংশ মাসিক ভিত্তিতে নেওয়া বাধ্যতামূলক করা হয়েছে।

পোষ্টটি লিখেছেন: Ayon Hasan

Ayon Hasan এই ব্লগে 190 টি পোষ্ট লিখেছেন .

Comments

comments