Home / ভিন্ন জীবন ও সম্পর্ক / পত্রিকা বিক্রি করে বিসিএস ক্যাডার হবার পথে সেই হকার মিজানুর

পত্রিকা বিক্রি করে বিসিএস ক্যাডার হবার পথে সেই হকার মিজানুর

মিজানুরকে রুখতে পারেনি দারিদ্রতা,
পত্রিকা বিক্রির টাকায় লেখাপড়া চালয়ে অনার্স পাস করে সবাইকে তাক লাগিয়ে দিয়েছেন চাঁপাইনবাবগঞ্জ পৌর এলাকার মাঝপাড়া গ্রামের মিজানুর রহমান। চাঁপাইনবাবগঞ্জ সরকারি কলেজ থেকে দর্শন বিভাগে ২য় শ্রেনীতে উত্তীর্ন হয়েছে সে। আদম্য সাহস আর মনোবল কারনে মিজানুরের পড়ালেখার কাছে হার মেনেছে দারিদ্র। তার এই সাফল্যে চরম খুশি মিজানুরের সহপাঠী ও শিক্ষকরা।
রিক্সাচালক আশরাফুল ইসলামের ছেলে মিজানুর পেশায় একজন সংবাদপত্র হকার। প্রতিদিন ভোরে সাইকেলের সামনে-পিছনে জাতীয় ও স্থানীয় বিভিন্ন পত্রিকা নিয়ে তাকে ছুটতে হয় পাঠকদের কাছে। এর মধ্যেই তিনি চালিয়ে গেছেন তার লেখাপড়া। নবাবগঞ্জ সরকারি কলেজ থেকে এবার দর্শন বিভাগে দ্বিতীয় শ্রেণীতে সম্মান শ্রেণী পাস করলেন তিনি।

মিজানুর রহমান জানান, এইচএসসি পাস করার পর রিক্সাচালক বাবা তার লেখাপড়ার খরচ আর চালাবে না বলে জানিয়ে দেন। কিন্তু বাবার আপত্তি স্বত্বেও মিজানুর রহমান ভর্তি হন নবাবগঞ্জ সরকারি কলেজে। লেখাপড়ার খরচ যোগাতে বেছে নেন সংবাদপত্র বিক্রির কাজ। ভোর থেকে দুপুর পর্যন্ত পাঠকদের কাছে পত্রিকা বিক্রি করে একদিকে চালিয়েছেন সংসার আর অন্যদিকে লেখাপড়া।

অবশেষে আদম্য মিজানুরের কাছে হার মানে দারিদ্রতা। শিক্ষক ও সহপাঠীদের সহায়তা ও উৎসাহে সে এবার ২য় বিভাগে উত্তীর্ন হয়েছে। মিজানুর জানায় তার এই সাফল্যে সবচেয়ে অবদান রয়েছে নবাবগঞ্জ সরকারি কলেজের দর্শন বিভাগের শিক্ষক রেজাউল করিম ও মাহমিদ স্যারের। তারা সব সময় তাকে লেখাপড়া চালিয়ে যেতে উৎসাহ দিয়েছে। এখন মাস্টার্স সম্পন্ন করে সে বিসিএসের মাধ্যমে শিক্ষকতা পেশাকে বেঁছে নিতে চাই।
সেলুট ভাই তোমাকে

পোষ্টটি লিখেছেন: Ayon Hasan

Ayon Hasan এই ব্লগে 141 টি পোষ্ট লিখেছেন .

Comments

comments

0
[X]